খালি বোতল ফেরত দিয়ে আয়!

নিউ সাউথ ওয়েলস রাজ্যজুড়ে পানীয়ের পাত্রের লিটার কমাতে রিটার্ন অ্যান্ড আর্ন স্কিম চালু করেছে। এই স্কিমের অধীনে উপযুক্ত কন্টেইনারগুলো সাধারণত যেগুলো লিটার হিসেবে পাওয়া যায় সেগুলো ফেরত দিয়ে বাড়তি আয়ের সুযোগ করে দেওয়া হয়েছে। কোন কোন পাত্র ফেরত দেওয়া যাবে আর কোন কোন পাত্র ফেরত দেওয়া যাবে না তার একটি তালিকাও করে দেওয়া হয়েছে।
ফেরতযোগ্য পাত্রের তালিকায় আছে সর্বাধিক ১৫০ মিলিলিটার থেকে তিন লিটারের পানীয় পাত্র। এগুলো ফেরত দেওয়ার যোগ্য বলে বিবেচিত হবে। কনটেইনার উপকরণগুলোর মধ্যে যেগুলো ফেরতের জন্য যোগ্য হতে পারে সেগুলো হচ্ছে কাচ, প্লাস্টিক, অ্যালুমিনিয়াম, ইস্পাত, লিকুইড পেপারবোর্ড (বাক্স)। পাত্রগুলো অবশ্যই খালি হতে হবে এবং কোনোভাবেই ভাঙা থাকা যাবে না। আকৃতি অবিকৃত ও মূল লেবেল সংযুক্ত থাকতে হবে। মদ ও স্পিরিটের বোতল, কর্ডিয়াল ও প্লেন দুধের পাত্র সাধারণত ফেরতযোগ্য নয়। যদি কোনো পাত্র ফেরতের জন্য যোগ্য না হয়, তবে পাশে রাখা রিসাইকেল বিন ব্যবহার করতে বলা হয়।যে কনটেইনারগুলো ফেরতের জন্য জমা করা যাবে না সেগুলো হচ্ছে সাধারণ দুধের (বা দুধের বিকল্প) পাত্র, এক লিটার বা আরও বেশি চর্বিযুক্ত দুধের পাত্র, এক লিটার বা তার চেয়ে বেশি ফলের বা উদ্ভিজ রসের পাত্র, মদ ও স্পিরিটের গ্লাস কনটেইনারগুলো, এক লিটার বা তার বেশি মদ বা পানির পাত্র (যে বাক্সে প্লাস্টিক ব্লাডার থাকে), ২৫০ মিলি বা তার বেশি আয়তনের মদের বোতল, কর্ডিয়াল ও ঘনীভূত ফল/উদ্ভিজ রসের পাত্র, নিবন্ধিত স্বাস্থ্য টনিকসমূহ।
চারভাবে এই ফেরত প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা যাবে। রিভার্স ভেন্ডিং মেশিন, ওভার-দ্য-কাউন্টার কালেকশন পয়েন্টস, অটোমেটেড ডিপো ও ডোনেশন স্টেশন। রিভার্স ভেন্ডিং মেশিনে যেকোনো সংখ্যক পরিমাণ বোতল ফেরত দেওয়া যাবে তবে ৫০০ পর্যন্ত ফেরত দেওয়ার জন্য এটা বেশি উপযোগী। এই মেশিন থেকে তিনভাবে রিফান্ডগুলো প্রদান করা হয়। ভাউচার, ই-পেমেন্ট অথবা স্ক্রিনে দেখানো কোনো দাতব্য প্রতিষ্ঠানকে দান করে দেওয়া।ওভার দ্য কাউন্টার কালেকশন পয়েন্টস স্টেশনে সাধারণত ৫০ থেকে ১০০ পাত্র ফেরত দেওয়া যায়। পাত্রের ফেরতযোগ্যতা যাচাইয়ের পর অপারেটর প্রতি পাত্রের জন্য ১০ সেন্ট করে ফেরত দেয়।
অটোমেটেড ডিপোগুলোতে যন্ত্রের সাহায্যে স্ক্যান ও গণনা করে ৫০০ বা তারও বেশি পাত্র ফেরত নেওয়া হয়। এখানে ইলেকট্রনিক ফান্ড ট্রান্সফার অথবা ক্যাশে রিফান্ড দেওয়া হয় তবে কোনো দাতব্য প্রতিষ্ঠানে ডোনেশানের সুবিধা নেই।
আর ডোনেশান স্টেশনগুলো রিভার্স ভেন্ডিং মেশিনের মতোই কাজ করে তবে এখানে শুধু কোনো দাতব্য প্রতিষ্ঠানে দান করা যায় কিন্তু ইলেকট্রনিক ফান্ড ট্রান্সফার অথবা ক্যাশে ফেরত দেওয়ার ব্যবস্থা নেই।
অস্ট্রেলিয়াতে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা বিষয়ে অনেক সচেতনতা থাকার পরও পার্ক ও মার্কেটের বাইরে পার্কিংয়ে এমনকি খেলার মাঠেও মাঝেমধ্যে অনেক বোতল পড়ে থাকতে দেখতাম। কিন্তু এই রিটার্ন ও আর্ন স্কিম চালু হওয়ার পর এখন আর রাস্তাঘাটে কোথাও খালি বোতল পড়ে থাকতে দেখা যায় না বললেই চলে। আমি একদিন একটা দরকারে একটা খালি পাত্র খুঁজছিলাম কিন্তু মিন্টো শপিং মলের সবটুকু খোলা জায়গা ঘুরেও কোনো খালি বোতল পেলাম না। পরে মনে পড়ল যে রিটার্ন অ্যান্ড আর্ন স্কিম চালু হয়ে গেছে।আমার মনে হয় ঢাকা শহরের পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতার ব্যাপারে আমরা এমন একটা পদক্ষেপ নিতেই পারি। এতে করে একদিকে যেমন দরিদ্র মানুষগুলো বাড়তি আয়ের সুযোগ পাবেন তেমনি পরিবেশও পরিষ্কার ও স্বাস্থ্যকর থাকবে।

কমেন্টসমুহ
সিক্রেট ডাইরি সিক্রেট ডাইরি

Top