fbpx

ছাত্রদলের সাবেক সভাপতির মেয়ের আবেগঘন স্ট্যাটাস

গত বছরের সেপ্টেম্বর মাসে গ্রেফতার হন ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি হাবিব-উন নবী সোহেল।

তখন থেকেই বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব ও ঢাকা মহানগর দক্ষিণের এই সভাপতি কারাগারে বন্দী আছেন।

এবারের ঈদ আনন্দ অনেকটাই ম্লান সোহেলের দুই কন্যা সূচনা ও মাটির কাছে। প্রাণ প্রিয় বাবা ছাড়া ঈদ উদযাপন মানতেই পারেনি তারা।

তাই ঈদের দিনই (বুধবার) বাবাকে একনজর দেখতে মাকে সঙ্গে নিয়ে নারায়ণগঞ্জ কারাগারে গিয়েছিল সূচনা ও মাটি।

তবে তাতে মন ভরেনি তাদের। নিজের অনুভুটির কথা জানাতে ফেসবুককে বেছে নিলেন সূচনা।

কারাগার থেকে বেরিয়ে বাবাকে নিয়ে আবেগঘন ফেসবুক স্ট্যাটাস দেন সোহেলের কন্যা জান্নাতুল এলমি সূচনা।

সূচনার স্ট্যাটাসটি তুলে ধরা হলো- ‘ডেপুটি জেলারের রুদ্ধ কক্ষে মিষ্টি একটা হাসি নিয়ে বাবা ঢুকলেন … পরনে শুভ্র পাঞ্জাবি … চুল ব্যাকব্রাশ … মাথায় হাত বুলিয়ে বললেন – মা , ঈদ মোবারক , এবার তোমাদের কিছুই দেয়া হলো না, পাওনা রইলো সব কেমন ? … মার দিকে তাকিয়ে কি যেন একটা হাতে গুজে দিলেন … অবাক ব্যাপার! একটা সুন্দর লাল পাড়ের জামদানি! জেলের ভেতর অর্ডার দিয়েছে মাকে ঈদে দিবে বলে … মার চোখের কোণে কি যেন ছলছল করছে … এমন একটা মানুষকে একদিন ভালবেসে নাকি হাজার বছর অপেক্ষা করা যায় …। আজ আমাদের রুদ্ধ ঈদ … তিনজন এপাড়ে, আত্মা ওপাড়ে …। সকাল থেকে এখানেই আছি … নারায়ণগঞ্জ জেলা কারাগার … আকাশটাও অঝর ধারায় কেঁদে চলছে … আমরা তাকিয়ে আছি সেদিকে …। বৃষ্টির ফোঁটায় চোখের পানি আড়াল হয়ে যাচ্ছে তিনজনের … খারাপ না ব্যাপারটা …সবাইকে একগুচ্ছ বিপ্লবী ঈদের শুভেচ্ছা।

প্রসঙ্গত ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি সোহেলের বিরুদ্ধে ১৪৩টি মামলা রয়েছে। তবে এসব মামলায় তিনি উচ্চ আদালত থেকে জামিন পেয়েছেন।

গত বছর বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় রায়কে ঘিরে আন্দোলন গড়ে তুলতে সক্রিয় ছিলেন সোহেল।

তিনি ঘোষণা দিয়েছিলেন, যেসব বিএনপি নেতা আন্দোলনে মাঠে নামবেন না তাদের তিনি চুড়ি পরিয়ে দেবেন।

কমেন্টসমুহ
সিক্রেট ডাইরি সিক্রেট ডাইরি

Top